একের পর এক সুপারহিট সিনেমা দিয়ে কেন চলে গিয়েছিলেন আড়ালে! অবশেষে মুখ খুললেন ভাগ্যশ্রী

একের পর এক সুপারহিট সিনেমা দিয়ে কেন চলে গিয়েছিলেন আড়ালে! অবশেষে মুখ খুললেন ভাগ্যশ্রী


দশকটা নব্বইয়ের। রিলিজ করল সলমান খান (Salman Khan)-এর প্রথম ফিল্ম ‘ম্যায়নে পেয়ার কিয়া’। নায়িকাও নবাগতা। তাঁর নাম ভাগ্যশ্রী (Bhagyashree)। পুনের এক রাজবংশের মেয়ে হয়েও তিনি এসেছিলেন ফিল্মে। তাঁর মিষ্টতা দর্শকদের মন জয় করে নিয়েছিল। জনপ্রিয়তা পেয়েও হঠাৎই আড়ালে চলে গিয়েছিলেন ভাগ্যশ্রী। দর্শকদের মনে বারবার প্রশ্ন জেগেছিল, তিনি কোথায়! কখনও শোনা গেছে, বিয়ে করে তিনি পাড়ি দিয়েছেন বিদেশে। কখনও বা তাঁকে নিয়ে ছড়িয়েছে পারিবারিক রক্ষণশীলতার গুজব। এবার মুখ খুললেন ভাগ্যশ্রী নিজেই।

ইদানিং ভাগ্যশ্রী সোশ্যাল মিডিয়ায় যথেষ্ট অ্যাকটিভ হয়ে উঠছেন। জনসমক্ষে নিয়ে এসেছেন তাঁর পুত্র অভিমন‍্যু দাসানি (Abhimanyu Dasani)-কেও। তিনিও বলিউডে ডেবিউ করেছেন ‘মর্দ কো দর্দ নেহি হোতা’ ফিল্মের মাধ্যমে। শিল্পা শেঠি (Shilpa Shetty)-র বিপরীতে তাঁকে ‘নিকম্মা’ ফিল্মেও দেখা যাবে। কিন্তু এত কিছুর পরেও ভাগ্যশ্রী আগের থেকেও সুন্দরী হয়ে উঠেছেন। সম্প্রতি একটি সাক্ষাৎকারে তিনি জানিয়েছেন, তাঁর বলিউড থেকে হঠাৎই সরে যাওয়ার কারণ। শারীরিক ভাবে প্রবল অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন ভাগ্যশ্রী। ফলে সঠিক খাদ্যাভ‍্যাস ও ফিটনেস অত্যন্ত জরুরী ছিল তাঁর জন্য।

টেলিভিশনে ‘লওট আও তৃষা’-য় অভিনয় করার সময় ডান হাত তুলতে পারছিলেন না ভাগ্যশ্রী। শারীরিক পরিস্থিতি এতটাই খারাপ হয়ে গিয়েছিল যে, শুটিং করা প্রায় অসম্ভব হয়ে উঠেছিল তাঁর পক্ষে। স্ট্যানফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয়, আমেরিকান ফিটনেস অ্যান্ড প্রফেশনাল অ্যাসোসিয়েটস এবং ইউনিভার্সিটি অফ পেনসিলভ‍্যানিয়া থেকে ভার্চুয়ালি ফিটনেস ও নিউট্রিশনের ক্লাস করেছেন তিনি। সেই সময় ভাগ্যশ্রী অনুভব করেছিলেন, খুব সাধারণ জীবনযাপন মানুষকে ভালো রাখতে পারে।

2010 সালে ‘রেড অ্যালার্ট : দ্য ওয়ার উইদিন’-এর মাধ্যমে ভাগ্যশ্রী আবারও নিজের কেরিয়ারের দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করেছেন। এই মুহূর্তে ‘রাধে শ‍্যাম’ ফিল্মে অভিনয় করছেন তিনি। এই ফিল্মে ভাগ্যশ্রী ছাড়াও অভিনয় করছেন প্রভাস (Prabhas), পূজা হেগড়ে (Puja Hegde)। ভাগ্যশ্রী এই ফিল্মে প্রভাসের মায়ের ভূমিকায় অভিনয় করছেন।

আরো পড়ুন -  ‘তারে জমিন পর'-এর ছোট্ট ইশান এখন হ্যান্ডসাম পুরুষ, দেখলে চিনতেই পারবেন না! রইল তার ছবি