জন্মাষ্টমীতে ফের বিতর্কে ঊর্মি, গোপালকে নাড়ুর বদলে নিবেদন করলেন ডিম দেওয়া কেক!

জন্মাষ্টমীতে ফের বিতর্কে ঊর্মি, গোপালকে নাড়ুর বদলে নিবেদন করলেন ডিম দেওয়া কেক!

কিছুদিন আগেই হয়েছে ঊর্মি ও সাত‍্যকির বিয়ে। বিয়ের দিনেও কয়েকবার ঊর্মি প্রচলিত রীতির বিরুদ্ধে গিয়েছে, তবে মজার ছলে। কিন্তু এবার জন্মাষ্টমীর দিন ঊর্মির বায়নাক্কা দেখে সকলের চোখ কপালে উঠে গেছে।

জন্মাষ্টমী উপলক্ষ্যে ঊর্মির শ্বশুরবাড়িতে গোপালের জন্য বাড়ির মেয়েরা তৈরি করছে নাড়ু। কিন্তু হঠাৎই ঊর্মির মাথায় আসে এক আইডিয়া। পুজোর সময় সবাই যখন নাড়ু তৈরি করে গোপালকে নিবেদন করছে, তখন উর্মি হঠাৎই গোপালের জন্য নিয়ে আসে জন্মদিনের জন্য তৈরি বড় চকোলেট কেক যাতে লেখা ‘হ্যাপি বার্থডে’। গোপালকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানিয়ে কেক নিবেদন করতে যায় ঊর্মি। তা দেখে সকলের হাত থেকে পুজোর থালা পড়ে যায়। পুজোয় উপস্থিত সকলে ডিম দেওয়া কেক দিয়ে ঊর্মির গোপালের পুজো করার বিরোধিতা করেন। ঊর্মি বলে, গোপালও তো বাড়ির ছেলে, তাহলে তাকে কেক কেন খাওয়ানো যাবে না! সবাই পুজো বন্ধ করতে বলে। এবার কি করবে ঊর্মি?

‘এই পথ যদি না শেষ হয়’-এর প্রোমো ভাইরাল হতেই শুরু হয়ে গিয়েছে জন্মাষ্টমী পুজো ও সনাতন হিন্দু ধর্মের আচার-আচরণ নিয়ে বিতর্ক। নেটিজেনদের একাংশ বলতে শুরু করেছেন সনাতন হিন্দু ধর্মে ডিম ব্রাত্য। অনেকে আবার গোপাল পুজোর নিয়ম নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন।

তবে এইখানেই সফল হয়েছে ‘এই পথ যদি না শেষ হয়’। কারণ একটি সিরিয়াল তখনই স্পেশ‍্যাল হয়, যখন তাকে নিয়ে বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছে। জি বাংলায় সোমবার থেকে শুক্রবার রাত দশটায় সম্প্রচারিত হচ্ছে ‘এই পথ যদি না শেষ হয়’। সিরিয়ালটি দেখা যাচ্ছে জি ফাইভ অ্যাপেও।