ফুটপাত থেকে রাজপ্রাসাদ, বলিউড সিনেমার গল্পকেও হার মানাবে মিঠুনের দত্তক নেওয়া মেয়ের জীবন কাহিনী

ফুটপাত থেকে রাজপ্রাসাদ, বলিউড সিনেমার গল্পকেও হার মানাবে মিঠুনের দত্তক নেওয়া মেয়ের জীবন কাহিনী


90 দশকের জনপ্রিয় অভিনেতাদের মধ্যে একজন অন্যতম হচ্ছেন মিঠুন চক্রবর্তী। বলিউড থেকে টলিউড সমস্ত জায়গাতেই একাই রাজত্ব করেছেন তিনি। আট থেকে আশি, সকলেই তাকে এক নামে চেনে। ছোট থেকে বড় সকলেই তার নাচে হাততালি দেয়। অভিনয় জীবনের সংগ্রামে কঠিন পরিশ্রম করার পর আজ তিনি শীর্ষে অবস্থান করছেন। অভিনয় জগতে সাফল্য লাভের পর যোগিতা বালির সাথে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন মহাগুরু।

আরো পড়ুন -  পরিবারে আসছে নতুন সদস্য, মা হতে চলেছেন মিঠাই-এর নন্দা

বর্তমানে মিঠুন চক্রবর্তী ও যোগিতা বালির তিন পুত্র ও একটি কন্যা সন্তান রয়েছে। কিন্তু এই কন্যাটির জন্মদাত্রী বাবা মিঠুন নন। এই কন্যাটিকে খুব অল্প বয়সে দত্তক নিয়ে ছিলেন অভিনেতা। অনেক সময় আগে এক ডাস্টবিনের পাশ থেকে একটি কন্যা সন্তানকে উদ্ধার করেছিল পুলিশ। পরবর্তীকালে সেই শিশুটিকে স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার হাতে তুলে দেয় স্থানীয় প্রশাসন। ‌ খবর পাওয়া মাত্রই অভিনেতা সেই স্বেচ্ছাসেবী সংস্থার সাথে যোগাযোগ করে কন্যা সন্তান দত্তক নেন। তার নাম রাখেন দিশানী চক্রবর্তী।

আরো পড়ুন -  খোলামেলা পোশাকে পষ্ট বক্ষযুগল, নিজের হট ছবি পোস্ট করে কামুক ভক্তদের হৃদয় কাড়লেন অভিনেত্রী মৌনি রায়

এই ছোট্ট মেয়ে দিশানী আজ বড় হয়ে গেছে। বর্তমানে সে নিউইয়র্ক ফিল্ম একাডেমি থেকে চলচ্চিত্র সংক্রান্ত পড়াশোনা শেষ করে নিজেকে প্রস্তুত করছেন বড় পর্দার জন্য। খুব শীঘ্রই অভিনয় জগতে দেখা যেতে পারে তাকে। 2017 সালে হোলি স্মোক নামক একটি চলচ্চিত্রের মাধ্যমে আত্মপ্রকাশ করেছে দিশানি।

“আন্ডারপাস”, “শাটল এশিয়ান ডেটিং ইয়ুথ পিপিএম” নামক ছবিগুলিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় অভিনয় করতে দেখা গেছে তাকে। দিশানি অভিনয় জগতে পা রেখেছিল তার দাদার হাত ধরে। বর্তমানে সে নিজেকে বড় পর্দার যোগ্য করে তোলার জন্য চেষ্টা করছে। খুব শিগগিরই হয়তো সে টেক্কা দিতে আসছে বলিউডের জনপ্রিয় হিরোইনদের।