Aryan Khan: জেলেই ১৪ দিন থাকতে হবে আরিয়ানকে, জুটবে জেলের খাবার, কড়া নিয়মে আবদ্ধ বাদশা পুত্র

Aryan Khan: জেলেই ১৪ দিন থাকতে হবে আরিয়ানকে, জুটবে জেলের খাবার, কড়া নিয়মে আবদ্ধ বাদশা পুত্র


কোনো ভাবেই শুক্রবার ও জামিন মিলননা আরিয়ান খানের। আপাতত জেলের রুদ্ধদ্বার কক্ষেই দিন কাটছে অভিনেতার। বর্তমানে আর্থার রোড জেল হল বাদশার পুত্র’র ১৪ দিনের ঠিকানা। কোভিড টেস্ট করিয়ে সেই জেলে পাঠানো হয়েছে। আরিয়ান-সহ এই মামলায় যুক্ত বাকি অপরাধীদের গ্রেফতার সকলের কোভিড রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। আর প্রত্যেকের করোনা টিকার দুটি ডোজই নেওয়া রয়েছে বলে এনসিবি সূত্রে খবর। করোনা নিয়মবিধি মেনে সেখানে তিন থেকে পাঁচ দিন নিভৃতবাসে কাটাতে হবে আরিয়ানকে।

গত বৃহস্পতিবার ১৪ দিনের বিচারবিভাগীয় হেফাজতে পাঠানো হয়েছে আরিয়ানকে। তিনি বলিউডের বাদশার পুত্র বলে কোনও রকম ‘বিশেষ আয়োজন’ করা হবে না তাঁর জন্য। আর পাঁচ জন হাজতবাসীর মতোই থাকবেন ‘কিং খান’-এর বড় ছেলে। কোন রুটিন মেনে আগামী কয়েক দিন চলবেন বাদশা-পুত্র? এতদিন রাজপুত্র আরিয়ানের এক ইশারাতেই লাইন দিয়ে দাঁড়িয়ে থাকতো অগুণতি পরিচারক। মন্নতের রাজকুমারের জন্য আয়োজন করা হত নানান খাবার।

আরো পড়ুন -  খোলামেলা পোশাকে উন্মুক্ত বক্ষবিভাজিকা, সোশ্যাল মিডিয়ায় উষ্ণতার পারদ চড়ালেন বাঙালি অভিনেত্রী রাইমা সেন

অথচ বর্তমান সময়ে দাঁড়িয়ে আর্থার রোড জেলে একদম সাধারণ জীবনযাপন করতে হচ্ছে এই তারকা-পুত্রকে। এই মামলায় গ্রেফতার আরও পাঁচ জনের সঙ্গে আরিয়ানকে রাখা হয়েছে মুম্বইয়ের জেলের ১ নম্বর ব্যারাকে হাইপ্রোফাইল অপরাধীদের। প্রতিদিন ঘড়ির সময় অনুযায়ী ঠিক সকাল ৬টায় ঘুম থেকে উঠিয়ে দেওয়া হয় প্রত্যেক অভিযুক্তকে। এরপর সকাল সাতটায় আসে জলখাবার। প্রতিদিন জেলে যা রান্না হবে তাই খেতে হবে সকল অপরাধীদের। বাইরের ভালো খাবার এক্কেবারে নিষিদ্ধ।

আরো পড়ুন -  জন্ম থেকেই সেলেব্রিটি, নবাব পুত্র তৈমুরকে টক্কর দিচ্ছে টলিউডের এই তিন স্টারকিড

এরপর সকাল ১১টায় মধ্যহ্নভোজ দেওয়া হবে। দুপুর ও রাতের খাবারের মেনু কম-বেশি প্রায় এক। তালিকায় থাকবে রুটি, তরকারি, ডাল আর ভাত। নেই কোনো মাংস। আরিয়ানরা এখন সাধারণ পোশাকেই থাকতে পারবেন, জেলের পোশাক তাঁদের জন্য এখনো বরাদ্দ হয়নি। দুপুরে খাওয়ার পর হাজতের ভিতর হাঁটা-চলার অনুমতি রয়েছে সঅভিযুক্তদের। কিন্তু শাহরুখ-গৌরী তনয়ের জন্য আগামী পাঁচদিন এই নিয়ম প্রযোজ্য নয়। নিভৃতবাস শেষ হলে তাঁরা জেলে ঘোরাফেরা করতে পারবে। সন্ধ্যা ৬টা-তে রাতের খাবার দেওয়া হয়।

আরো পড়ুন -  বিয়ে করলে কাজ ছাড়তে হবে, এই একটি মাত্র শর্তে তিন তিনটি বিয়ে করেছেন সঞ্জয় দত্ত!

অবশ্য এর বাইরে জেলের ক্যান্টিন থেকে অন্য খাবার চাইলে অর্ডার করতে পারেন আরিয়ান, সেক্ষেত্রে টাকা মানি অর্ডারের মাধ্যমে আনানো যেতে পারে। অবশ্য এর জন্য নিতে হবে জেল কর্তৃপক্ষের অনুমতি। আগামী ১৪ দিন আরিয়ানের লাক্সারি জীবন ছেড়ে বরাদ্দ এমনই সাধারণ জীবন। প্রমোদতরীর সেই পার্টিতে যাওয়াই এখন কাল হয়েছে শাহরুখ তনয়ের জীবনে! আটদিন আগেও সকালেও তিনি জানতেননা যে আজকে জেলে দিন কাটাতে হবে। গত শুক্রবার আরিয়ানের জামিনের আর্জি খারিজ করেছে ম্যাজিস্ট্রেট কোর্ট। এখানেই থেমে নেই শাহরুখ। এবার বিশেষ এনডিপিএস আদালতে আরিয়ান খানের জামিনের আর্জি জানানো হচ্ছে।